অভিমান, অভিযোগ নয় সহানুভূতির দৃষ্টি প্রসারিত করুন

অভিমান, অভিযোগ নয় সহানুভূতির দৃষ্টি প্রসারিত করুন
মানুষ একা চলতে পারে না। সামাজিক জীব হিসেবে জীবন পরিচালনায় মানুষকে একে অপরের প্রতি নির্ভরশীল হতে হয়। গড়ে তুলতে হয় পারস্পরিক সেতুবন্ধ। ব্যক্তিগতভাবেও সফলতার জন্য মানুষকে একে অপরের প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়াতে হয়। যে কোন ক্ষেত্রে বসবাসরত মানুষের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টা তাদের যে কোন সাফল্য অর্জন পথে সহায়ক হয়। ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টা মানুষের একটি বিশাল শক্তি। এই ...

সদা হাস্যোজ্জ্বল থেকে আচরণে আন্তরিক হোন

মানুষ সামাজিক জীব। সামাজিক জীব হিসেবেই প্রতিনিয়ত তাকে সমাজের অন্যান্য মানুষের সাথে চলতে ফিরতে হয়, কথা বলতে হয়। এটি মানুষের জীবনাচরণের একটি গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়। গুরুত্বপূর্ণ এ অধ্যায়ে শুধুমাত্র আচরণের কারণেই একজন আরেকজনের বন্ধু হয়, একজন আরেকজনের শত্রু হয়, একজন আরেকজনকে কাছে টেনে নেয়, একজন আরেকজনকে দূরে ঠেলে দেয়। আচরণের এই ভিন্নতার কারণেই মানুষের পরিচয়ও ভিন্নভাবে ...

অনন্য একজন মানুষের সাথে কিছু স্মৃতি

অনন্য একজন মানুষের সাথে কিছু স্মৃতি
১৬ অক্টোবর ২০১৩ বুধবার। পবিত্র ঈদুল আজহার দিন। তার আগের দিন অর্থাৎ মঙ্গলবার বেশিরভাগ সময় জুড়েই আমাদের সবার মাঝে জল্পনা কল্পনা চলছিল। আমাদের সবাই বলতে- সেই সময়ে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দী জামায়াত এবং ছাত্রশিবিরের ভাইদের কথা বলছি। আমিও তখন কারাগারে বন্দী। আমার ঠিকানা তখন ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের নাইনটি সেলের ৬৪ নম্বর কক্ষ। শহীদ আলী আহসান ...

সাহস আছে যার সাফল্যের বিজয়মুকুট তার

সাহস আছে যার সাফল্যের বিজয়মুকুট তার
পৃথিবীটা সত্যিই সাহসী মানুষের জন্য। ভিতু কাপুরুষের জন্য পৃথিবীটা আজাবের কারাগার। সাহস নিয়ে হিম্মতের সাথে পথ চলতে পারলে সফলতা সুনিশ্চিত। আর ভয়ে ভিতু হয়ে চলার মধ্যে কোনো কল্যাণ নেই। যারা সাহস নিয়ে পথ চলেছে তারাই পৃথিবীকে জয় করতে পেরেছে। যুদ্ধজয় থেকে শুরু করে সমুদ্রজয়, পর্বতারোহণ কিংবা বিশ্বজয়- সকল ক্ষেত্রেই সাহসী মানুষ সুখের হাসি হেসেছে। আর ...

শিকল পরা হাতের পরশ

আমি একজন প্রতীকী নুমায়ের বলছি। আবদুল্লাহ ইবনে মাসুদ নুমায়ের। আমাকে হয়তো আপনারা অনেকে চিনবেন। কারণ আমার জন্মের খবরটি সোশ্যাল মিডিয়ায় খুব ফলাও করে প্রচার করা হয়েছিল। আমি যেদিন ভূমিষ্ঠ হই সেদিন আমার জন্মদাতা বাবা ড. শফিকুল ইসলাম মাসুদ বন্দী ছিলেন জালিমের বন্দিশালায়। ওহ বাবা শব্দটি শুনলে আমার শরীরে এক রোমাঞ্চ শিহরিত হয়! মনের ভেতর কেন ...

রক্তাক্ত ২৮ : মেধাবীদের লাশের মিছিল

রক্তাক্ত ২৮ : মেধাবীদের লাশের মিছিল
২০০৬ সালের ২৮ অক্টোবর বাংলাদেশের ইতিহাসের জঘন্যতম এক কালো অধ্যায়। এদিন রাজপথে প্রকাশ্যে পিটিয়ে খুন করা হয়েছিল দেশপ্রেমিক জনতার পাশাপাশি অসংখ্য মেধাবী ছাত্রকে। এক সাথে এতগুলো মেধাবী ছাত্রকে খুঁচিয়ে খুঁচিয়ে প্রকাশ্য রাজপথে হত্যা করার ঘটনা বিশ্ব ইতিহাসে ছিল বিরল। সেদিন পিচঢালা কালো রাজপথ লাল রঙে রঞ্জিত হয়েছিল মেধাবী ছাত্র আর দেশপ্রেমিক জনতার খুনঝরা রক্তে। সেদিন ...